ছাত্রীর পোশাকে রক্তের দাগ, অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ স্কুল

নিউজ ডেস্কঃ
স্কুল থেকে বৃহস্পতিবার বাড়ি ফেরার পর চার বছরের মেয়ের পোশাকে রক্তের দাগ লেগে থাকতে দেখেন মা। তারপরই জানা যায়, ওই শিশুটিকে স্কুলেরই দুই শিক্ষক যৌন নির্যাতন করেছেন।

অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ হতে চলেছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের সেই জি ডি বিড়লা স্কুল। রবিবার স্কুলের প্রিন্সিপাল স্কুল বন্ধের ঘোষণা দেন। নোটিসও লাগিয়ে দেওয়া হয়েছে স্কুলের দেওয়ালে। তাতে লেখা রয়েছে, আগামী সোমবার থেকে স্কুল বন্ধ থাকছে।

এই ঘটনায় অভিষেক ও মফিজউদ্দিন নামের শিক্ষককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। চকলেটের লোভ দেখিয়ে স্কুল চলাকালে ওই ছাত্রীকে তারা টয়লেটে নিয়ে যায় এবং যৌন নির্যাতন করে। এই ঘটনা সামনে আসার পর শুক্রবার সকালে বিক্ষোভ শুরু করে অভিভাবকরা।

অভিভাবকরা বেশ কিছু দাবি সামনে এনেছেন। স্কুলে পর্যাপ্ত সিসিটিভি লাগাতে হবে, নিচু ক্লাসে কোনও পুরুষ শিক্ষক রাখা যাবে না, প্রত্যেকটা শৌচালয়ের বাইরে মহিলা সহকারি রাখতে হবে, স্কুলের বিভিন্ন বিষয়ে পর্যবেক্ষণের জন্য অভিভাবকদের নিয়ে একটা কমিটি তৈরি করতে হবে।

অভিভাবকদের এই সমস্ত দাবি যত দিন না পূর্ণ হচ্ছে, তত দিন স্কুল বন্ধ রাখা হবে বলে প্রিন্সিপাল জানান।

সুত্রঃ jugantor